Categories
আইভী আওয়ামী লীগ নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশন রাজনীতি র‍্যাব শামীম ওসমান সেলিনা হায়াৎ আইভী

গতবারের খেলা এবার আর হবে না

শামীম ওসমান

নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের আগামী নির্বাচনে মেয়র পদে প্রার্থী হবেন না আওয়ামী লীগদলীয় সংসদ সদস্য শামীম ওসমান। তবে ওই নির্বাচনে তিনি অন্য একজনকে প্রার্থী দেবেন। ওই প্রার্থী পাস করলেও কাজ করবেন তিনিই। তিনি বলেছেন, ‘মেয়র যেই হবে মেয়রের জায়গায় মেয়র থাকবে। ওই মেয়রের পক্ষে সব কাজ আমি শামীম ওসমান করব। এ কথা আপনাদের দিতে চাই।’ বর্তমান মেয়র সেলিনা হায়াৎ আইভির উদ্দেশে তিনি বলেন, ‘গতবারের খেলা কিন্তু এবার হবে না।’

 

রোববার বিকেলে নারায়ণগঞ্জ শহরের ডিআইটি চত্বরে দুর্নীতি প্রতিরোধের ব্যানারে সচেতন জনগণ নামের শামীম ওসমান সমর্থিতদের আয়োজনে সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের সংসদ সদস্য শামীম ওসমান এসব কথা বলেন।

 

শামীম ওসমান বলেন, ‘(সিটি নির্বাচনে) আমরা অবশ্যই একজন ভালো, সৎ প্রার্থী দিব। যাকে দিয়ে নারায়ণগঞ্জকে আমরা ফুলের মতো সাজাব।’ বর্তমান মেয়র সেলিনা হায়াত আইভির উদ্দেশে তিনি বলেন, ‘আমি চাই, যদি এক বাবার মেয়ে হয়ে থাকে তবে আগামীতে সে নির্বাচন করে। আমি দেখতে চাই। আমরাও একটা প্রার্থী দিব। নির্বাচন করলে আপনার বাক্সে কয়টা ভোট পড়ে। গতবারের খেলা কিন্তু এবার হবে না। রাতের বেলায় প্রতিবাক্সে এক হাজার ভোট। ১০১ সেন্টারে এক লাখ এক হাজার ভোট চলে যাবে। ওই খেলা এবার হবে না। যেহেতু হবে না আর নির্বাচন যেহেতু আমি করমু না, করামু। তাই বুইঝা শুইনাই নাইমেন। আশা করি জামানত নিয়া বাসায় যাইতে পারবেন না। সৎ সাহস থাকলে হঠাৎ কইরা সুফিয়ান, টুফিয়ানরে নিয়া নিউজিল্যান্ড কানাডায় চইলা যাইয়েন না। থাইকা যাইয়েন। বইলা যাইয়েন গেলে।’

 

শামীম ওসমান বলেন, ‘নারায়ণগঞ্জে একটা বাচ্চা ছেলে মারা গেল। তার নাম ত্বকী। নাটক শুরু হয়ে গেল। কী করেছে? শামীম ওসমান মেরেছে। আর কী করেছে? আমার ছাত্রলীগের সেক্রেটারি সুজন মেরেছে। আমার ছেলেও নাকি সাথে মেরেছে। আমরা সাতজন মিলে নাকি মেরেছি। কেমনে মেরেছি? নিজ হাতে নাকি মেরেছি। মানে আমি পায়ে ধরছি, আমার ছেলে মাথায় ধরছে। এতগুলো মানুষ মিলে ওরে মাইরা ফালাইছে। সক্রিয়ভাবে যদি মারতে হয় তাহলে তো আমার উপস্থিত থাকা দরকার।’ তিনি আরো বলেন, ‘আইভি রাস্তায় নেমে বলা শুরু করে দিল এই ওসমান পরিবার। সাথে কিছু ছাগলের বাচ্চা ছিল এগুলোও দেখি লাফালাফি শুরু করল। আমি বললাম আরেকটু লাফায়া নে, টায়ার্ড হ- এরপরে কথা কই। আমি সাংবাদিকদের ডাকলাম, নারায়ণগঞ্জের সুশীল সমাজকে ডাকলাম। যদি হত্যা করতে হতো তাহলে তো আমার থাকতে হয়। আমি পাসপোর্ট দেখিয়ে বললাম আমি তখন দুবাই ছিলাম। আমার ছেলেও আমার সঙ্গে ছিল। ওদের মুখে কুলুপ আইটে গেল। তিনি বলেন, ‘এরপর বলল শামীম না নাসিম ওসমানের ছেলে মাইরা ফালাইছে। দুই মাস আগে আমি মারলাম, দুই মাস পর আমার ভাতিজা মারলো।’

 

একই প্রসঙ্গে শামীম ওসমান বলেন, ‘নারায়ণগঞ্জের র‍্যাব যখন তারা ছিল এরা তখন ইন্টু পিন্টু খুব বেশি করত এবং রাতের বেলায় মিটিং করত। এক জায়গায় আবার খানাপিনা হতো। কিছু বৈঠক হতো। ওই বৈঠক ছিল কীভাবে আওয়ামী লীগকে শেষ করা যায়। ওই র‍্যাবের ভাইয়েরা আজকে কোথায় আছে আপনারা জানেন। ওই দুর্নীতিবাজ র‍্যাবরা যারা আমার নজরুলকে হত্যা করেছে; এক ঢিলে দুই পাখি মেরেছে- সেই র‍্যাবের কর্মকর্তা আজকে জেলখানার ভেতরে অবস্থান করছেন।’

 

শামীম ওসমান আরো বলেন, ‘সেলিনা হায়াৎ আইভী বিগত দিনে কোনো উন্নয়নের কাজ করেনি। অপরিকল্পিত ভাবে যেখানে সেখানে দোকান-পাট, মার্কেট ও পার্ক নির্মাণ করে দুর্নীতি করেছে। মেয়রের দুর্নীতির বিষয়ে আমি সংসদে কথা বলেছি। দুর্নীতি কমিশন যদি আইভীর বিচার না করে, তবে জনগণের আদালতে তার বিচার হবে।’

 

শামীম ওসমান আরো বলেন, ‘শেষ সময়ে এসে আইভী এখন কাজ দেখানোর চেষ্টা করছে। নিজের লোকদের টেন্ডারে কাজ দিচ্ছে। মেয়রের কোটার দোকান-পাট স্বজনদের মাঝে দিয়ে কোটি কোটি টাকা হাতিয়ে নিচ্ছে। নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের ৩৬ জন কাউন্সিলরের মধ্যে ২৬ জনই আজ আমার সাথে এই মঞ্চে এসেছে। আইভীর দুর্নীতির বিরুদ্ধে কথা বলতে শুরু করেছে।’

 

নগর আওয়ামী লীগ সভাপতি আনোয়ার হোসেনের সভাপতিত্বে সমাবেশে আরো বক্তব্য দেন বিকেএমইএর সাবেক সভাপতি মঞ্জুরুল হক, নগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট খোকন সাহা, জেলা আইনজীবী সমিতির সাধারণ সম্পাদক হাসান ফেরদৌস জুয়েল, সিদ্ধিরগঞ্জ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ইয়াছিন মিয়া, সংরক্ষিত আসনের কাউন্সিলর ইসরাত জাহান স্মৃতি, সাবেক ছাত্রলীগ নেতা আবু হাসনাত শহীদ মোহাম্মদ বাদল প্রমুখ।

Categories
অভিযোগ রাজনীতি

জনতার আদালতে আইভীর বিচার হবে: শামীম ওসমান

shamim-osman

নারায়ণগঞ্জ: নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের সাংসদ এ কে এম শামীম ওসমান বলেন, নারায়ণগঞ্জের সচেতন মানুষ আজকে এখানে বিনা ঘোষনায় এই সমাবেশে উপস্থিত হয়েছে। এখানে কাউকে দাওয়াত করে নিয়ে আসা হয়নি।

নারায়ণগঞ্জের মানুষ যখনই কোন অন্যায় দেখেছে, তখনই রাজপথে নেমে এসেছে। কাউন্সিলররা এখানে উপস্থিত হয়ে জনগণের ভোটের মর্যাদা রেখেছেন। তারা এখানে তাদের দু:খের কথা বলেছেন। বিগত ৪ বছরে তারা সিটি কর্পোরেশনে শান্তিমত কাজ করতে পারেনি। বাংলাদেশে একটি সংস্থা আছে আইএমপি। তাদের কাজই হলো সরকারের বিভিন্ন সংস্থার দুর্নীতির তদারকি করা। দেশের প্রতিটি জাতীয় পত্রিকায় প্রকাশ পেয়েছে, পঞ্চবট্টি পার্কে যে কাজ হয়েছে, একশ টাকার মধ্যে সেখানে বাইশ টাকারও কাজ হয়নাই। যে সুফিয়ান এক সময় টিবয়ছিল, সে নাকী এখন কোটিপতি বনে গেছে।
নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনের মেয়র ডা: সেলিনা হায়াৎ আইভীর দুর্নীতির প্রতিবাদে বিশাল সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। রবিবার বিকেল ৪টায় শহরের ডিআইটি মসজিদের সামনে ট্রাকের উপড় নির্মিত অস্থায়ী মঞ্চে দুর্নীতি কারো কাম্য নয় শ্লোগানে সচেতন নাগরিক সমাজের আয়োজনে অনুষ্ঠিত হয় সমাবেশ।
মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি আনোয়ার হোসেনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের সাংসদ এ কে এম শামীম ওসমান।
তিনি আরো বলেন, মাধবী প্লাজাতে সংরক্ষিত কোটা থেকে সুফিয়ানকে দোকান বরাদ্ধ দেয়া হয়েছে, যেটা নারায়ণগঞ্জের সকল স্থানীয় পত্রিকাগুলোতে প্রকাশ পেয়েছে। সিটি কর্পোরেশনে যে নির্বাচন হয়েছে, সেখানে কী হয়েছে সেটা আইভীও জানে, আমিও জানি। তৈমুর নির্বাচন থেকে সড়ে না দাঁড়ালে ওনি জয়ী হতে পারতেন না। দলের স্বার্থে মুখ বন্ধ রেখেছি। ভবিষ্যতেও মুখ খুলবনা।
তিনি বলেন, নারায়ণগঞ্জবাসীর গ্যাসের সমস্যা সমাধানের জন্য আমার বড় ভাই মরহুম নাসিম ওসমান অনেক পরিশ্রম করে গেছেন। ওনি জীবিত অবস্থায় এ সমস্যা নিরসনের জন্য সিটি কর্পোরেশনের মেয়রের সাথে আলোচনায় বসতে চেয়েছিলেন। কিন্তু দূর্ভাগ্য যে, চোরে না শুনে ধর্মের কথা। এরপর আমার আরেক ভাই সেলিম ওসমান গ্যাসের সমস্যা সমাধান করেছেন। এখন নারায়ণগঞ্জে আর কোন গ্যাসের সমস্যা নাই। নাসিম ওসমান জীবিত অবস্থায় শীতলক্ষ্যা ব্রিজ যেন না হয়, সেজন্য আইভী বার বার বাধার সৃষ্টি করেছে।
শামীম ওসমান আরো বলেন, আমাকে ঘায়েল করার জন্য কিছু কুশীলরা আইভীর সাথে গোপণে আলোচনা করেছে। ত্বকী হত্যা নিয়ে আইভীর সাথে নারায়ণগঞ্জের কিছু সুশীল নামধারী ওসমান পরিবারকে ঘায়েল করতে প্রথমে আমার নাম জড়িয়েছিল। এরপর তারা আমার বড় ভাই নাসিম ওসমানের ছেলে আজমীর ওসমানের নাম জড়িয়েছে। তাদের উদ্যেশ্য ছিল সম্মান হানী করে তারা ওসমান পরিবারকে নারায়ণগঞ্জ থেকে বিলুপ্ত করবে। কিন্তু ত্বকী হত্যার রহস্য এখন উন্মাচন হচ্ছে। যেখানে ত্বকীর লাশ পাওয়া গেছে, সেখানকার কিছু লোক স্বাক্ষী দিয়েছে যে খুনের আগে দিন সেখানে ওর সাথে একটি মেয়ে ছিল।
তিনি আরো বলেন, ওসমান পরিবার এমন একটি রাজনৈতিক পরিবার, যারা কখনো অন্যায়ের কাছে মাথা নত করে নাই। নারায়ণগঞ্জের পতিতা পল্লি উচ্ছেদ করেছিলাম বলে আমাকে বোমা হামলায় মারার চেষ্টা চালোনো হয়েছিল। টেন্ডার ছাড়াই সিটি কর্পোরেশনের ৭২০টি দোকান বিক্রি করা হয়েছে। অথচ তিনি বলেছেন আমি এটা করি নাই। আমার মত শামীম ওসমান যে সংসদে রয়েছে, সেখানে আপনি মিথ্যা কথা বলে পার পেয়ে যাবেন, এটা ভাবলেন কী করে। আমি বাঘের মত গর্জন করে সংসদে যাই। যেদিন থেকে তদন্ত কমিটি মেয়রের দুর্নীতির প্রাথমিক প্রমাণ পেয়ে দুদকে পাঠিয়েছে, তারপর থেকেই আইভী নানা ভাবে টাকা ছিটানো শুরু করেছে। গরীব মানুষগুলো যখন কোন উৎসবে ফুটপাতে দোকান নিয়ে বসে, তখন চাঁদা না পেয়ে তাদের সকালে উঠায়, আর বিকেলে বসায়।
প্রশাসনের উদ্দ্যেশ্যে শামীম ওসমান বলেন, ফুটপাতের দোকানদাররা চোর না। তারা খেটে খায়। তাদের পেটে লাথি মারবেন না। প্রয়োজনে জায়গা ঠিক করে এদের দোকান বরাদ্ধ করে দিন। যদি কেউ এদের পেটে লাথি মারে, তাহলে আমি শামীম ওসমান একজন সাংসদ হিসেবে নয়, মানুষ হিসেবে তা সহ্য করবনা। সিটি কর্পোরেশনের কোন আইনে আছে ট্রানস্পোর্ট কোম্পানী সিটি কর্পোরেশনকে টাকা দিবে।
আইভীর চাচাতো ভাই অবৈধ রিক্সা আটক করে বাণিজ্য করছে। আগামীতে যেই মেয়র নির্বাচিত হোকনা কেন, আমি শামীম ওসমান তার পক্ষে কাজ করব।
আইভী ওয়ান ইলেভেনের সময় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বিরুদ্ধে কথা বলেছেন। সে যে দুর্নীতি করেছে, দুদক না পারলেও জনতার আদালতে তার বিচার হবে।
উপস্থিত ছিলেন, মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এড. খোকন সাহা, জেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক এড. আবু হাসনাত মো: শহীদ বাদল, সাবেক সভাপতি এড. আনিসুর রহমান দিপু, ফতুল্লা থানা আওয়ামী লীগের সভাপতি এম সাইফুল্লা বাদল, সাথারণ সম্পাদক শওকত আলী, বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ ড: শিরিণ শারমিন, নারায়ণগঞ্জ চেম্বার অব কমার্স এর সহ-সভাপতি মঞ্জুরুল হক, বিকেএমইএ সহ-সভাপতি জিএম ফারুক, জেলা ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটির সভাপতি চন্দন শীল, যুবলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক শাহ নিজাম, বাংলাদেশ ইয়ার্ণ মার্চেন্ট এসোসিয়েশনের সভাপতি লিটন সাহা, বাংলাদেশ এথলেটিক এসোসিয়েশনের সেক্রেটারি ইব্রাহীম চেঙ্গীস, মহানগর সেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি নাজমুল আলম সজল, সাধারণ সম্পাদক জুয়েল, মহানগর যুবলীগ সভাপতি শাহাদাত হোসেন সাজনু, সাধারণ সম্পাদক জাকিরুল আলম হেলাল, সাবেক ছাত্রলীগ নেতা এহসানুল হক নিপু, জিএম আরাফাত, বিশিষ্ট ক্যাবল ব্যাবসায়ী করিম বাবু, শেখ রাসেল শিশু কিশোর পষিদের সভাপতি ওবায়দুল আজিজ, স্বাধীনতা চিকিতসক পরিষদের সভাপতি ডা: দেবাশিস সাহা, নারায়ণগঞ্জ নিউজ পেপার এসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক এস এম ইকবাল রুমি, বন্দর থানা আওয়ামীলীগ সভাপতি আলহাজ্জ আব্দুর রশিদ, বিএমএ‘র সভাপতি ডা: শাহনেওয়াজ, সিদ্ধিরগঞ্জ থানার যুবলীগ সভাপতি মতিউর রহমান মতি, মহানগর শ্রমিক লীগের সভাপতি কাজিম উদ্দিন, সাধারণ সম্পাদক কামরুল হাসান মুন্না, মহানগর মহিলা লীগের সভানেত্রী ইসরাত জাহান খান স্মৃতি, জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি সাফায়েত আলম সানি, সাধারণ সম্পাদক মিজানুর রহমান সুজন, মহানগর ছাত্রলীগের আহ্বায়ক হাবিবুর রহমান রিয়াদ, নিতাইগঞ্জের শ্রমিক নেতা সানি প্রমুখ।

Categories
আইন শৃঙ্খলা রাজনীতি সামাজিক অবস্থা

৪ নং ওয়ার্ডের পাচটি কেন্দ্রই ঝুঁকিপূর্ণ -আইনশৃঙ্খলা কমিটি নির্বাচন কমিশন

1438260873নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশন ৪ নং ওয়াডের্র উপ-নির্বাচন সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করতে আইনশৃঙ্খলা কমিটির বিশেষ আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ১০টায় জেলা প্রশাসক কার্যালয়ে সভাটির আয়োজন করেন জেলা নির্বাচন কমিশন।

সভায় রিটার্নিং কর্মকর্তা মো. তারিফুজ্জামান বলেন, নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশন এলাকার ৪ নং ওয়ার্ড একটি গুরুত্বপূর্ণ নির্বাচনী এলাকা। এ ওয়ার্ডে পাঁচটি ভোট কেন্দ্র রয়েছে যার প্রতিটিই কোন না কোন প্রার্থীর বাড়ির সন্নিকটে অবস্থিত। ফলে প্রতিটি কেন্দ্রই ঝুঁকিপূর্ণ। তাই নির্বাচনকে ঘিরে যেন কোন ধরনের অপ্রত্যাশিত ঘটনা না ঘটে এজন্য আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর কঠোর হস্তক্ষেপ কামনা করা হয়। এছাড়া নির্বাচনের দিন আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর পাশাপাশি জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটের নেতৃত্বে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালিত হবে।

siddhirganj-ward-4
নারায়ণগঞ্জ জেলা নির্বাচন কমিশনার ও রিটার্নিং কর্মকর্তা মো. তারিফুজ্জামানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) মো. ছিদ্দিকুর রহমান, অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট মো. মিজানুর রহমান, জেলা সিভিল সার্জন ডা. আশুতোষ দাশ, এনএসআই-এর উপ-পরিচালক মো. তৌহিদুর রহমান, সহকারী পুলিশ সুপার এ সার্কেল মো. মনিরুজ্জামান, সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার আফরোজা আক্তার চৌধুরী, আনসার-ভিডিপি, র‌্যাব-১১ কমান্ডার, নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মোহাম্মদ সহিদুল হক পাটওয়ারী, মোহাম্মদ শরীফুল ইসলাম এবং কাজী মোহাম্মদ ফয়সাল প্রমুখ।

Categories
আইন শৃঙ্খলা রাজনীতি সামাজিক অবস্থা

৪ নং ওয়ার্ডে উপ নির্বাচন ২ আগস্টSiddhirganj

 

 

 

siddhirganj-ward-4

 

 

Area: Shimrail, Ati, North Ajibpur, Ajibpur (Northern) (Total Area: 3.65 sq. km)

 

 

Boundary:

North– Joka Mouja of Dhaka

, South– Northern Part of Ajibpur Road of Siddhirganj (upto Shitalakhya River), East– Shitalakhya River, West– Narayanganj-Demra Road

Population: 23,385

Household: 5,655

 

Categories
আইন শৃঙ্খলা গুরত্বপুরন ব্যাক্তিত্ব রাজনীতি

কিসের খালেদা, দায়িত্ব দেন এক ঘণ্টায় সব ঠিক করে ফেলব: শামীম ওসমান

 

Shamim Osman

সিদ্ধিরগঞ্জের মাননীয় সংসদ সদস্য  শামীম ওসমান বলেছেন, ‘ছাত্ররাজনীতি করাকালে জিয়াউর রহমানের গাড়ি থেকে পতাকা নামিয়েছি। এরশাদকে বাধা দিয়েছি। খালেদা জিয়াকে লংমার্চে বাধা দিয়েছি।’ তিনি বলেন, ‘আমি নেত্রীকে (প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা) বলেছি। কিসের খালেদা জিয়া, আমাদের দায়িত্ব দেন এক ঘণ্টায় ঢাকা এসে সমস্ত কিছু ঠিক করে ফেলব।’
আজ শনিবার বিকেলে নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার সিদ্ধিরগঞ্জপুল এলাকায় তাঁকে দেওয়া গণসংবর্ধনা অনুষ্ঠানে বক্তব্য দিতে গিয়ে শামীম ওসমান এসব কথা বলেন।
নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনকে ট্যাক্স প্রদান বন্ধ করতে সিদ্ধিরগঞ্জবাসীর প্রতি আহ্বান জানান নারায়ণগঞ্জ-৪ (ফতুল্লা-সিদ্ধিরগঞ্জ) আসনের ক্ষমতাসীন দলের এই সাংসদ। তিনি সিদ্ধিরগঞ্জবাসীর উদ্দেশ করে বলেন, ‘আপনারা সিটি করপোরেশনকে ট্যাক্স প্রদান বন্ধ করে দেন। আমি উন্নয়ন করে দেব।’
সিদ্ধিরগঞ্জ থানা আওয়ামী লীগের সভাপতি মজিবুর রহমানের সভাপতিত্বে সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য দেন জাতীয় শ্রমিক লীগের সাবেক সভাপতি আবদুল মতিন মাস্টার, সিদ্ধিরগঞ্জ থানা আওয়ামী লীগের জ্যেষ্ঠ সহসভাপতি নূর হোসেন, সাধারণ সম্পাদক ইয়াছিন মিয়া, যুবলীগের আহ্বায়ক মতিউর রহমান মতি প্রমুখ।
প্রসঙ্গত, ৫ জানুয়ারি জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হন শামীম ওসমান। ২০১১ সালের ৩০ অক্টোবর নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশন নির্বাচনে আওয়ামী লীগের সমর্থন নিয়ে মেয়র প্রার্থী হলেও সেলিনা হায়াত আইভীর কাছে এক লাখ ভোটের ব্যবধানে পরাজিত হন তিনি।

© Copyright 2013 – আমাদের সময়